কানাডা ভ্রমণে যা করণীয় ও বর্জনীয়

bcv24 ডেস্ক    ০৯:০৮ এএম, ২০১৯-০৪-১৯    492


কানাডা ভ্রমণে যা করণীয় ও বর্জনীয়

কানাডা উত্তর আমেরিকার উত্তরাংশে অবস্থিত একটি দেশ। দেশটি উত্তর আমেরিকা মহাদেশের প্রায় ৪১ শতাংশ নিয়ে গঠিত। কানাডা শুধু পৃথিবীর দ্বিতীয় বৃহত্তম দেশই নয়, বিশ্বের মধ্যে দ্বিতীয় সুন্দর দেশ হিসেবেও পরিচিতি রয়েছে। প্রবাস মেলা’র ধারাবাহিক আয়োজন ভ্রমণ টিপস এ এবার পৃথিবীর অন্যতম সৌন্দর্য্যতম দেশ কানাডা ভ্রমণে করণীয় ও বর্জনীয় তুলে ধরা হল।

কেন কানাডা ঘুরতে যাবেন?

প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্যে ভরপুর একটি দেশ হল কানাডা। বছরের বিভিন্ন সময়ে পৃথিবীর নানা প্রান্তের ভ্রমণ পিপাসুরা কানাডাতে যেয়ে  থাকেন। কানাডা এমন একটি দেশ যেখানে আপনি চাইলে এডভেঞ্চার যেমন নিতে পারবেন,

ঠিক নিতে পারবেন শান্তিময় অবকাশ যাপন। প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্যের পাশাপাশি দেশটি সাংস্কৃতিক দিক দিয়েও বৈচিত্র্যময়। গাছ-গাছালি, পাহাড়-পর্বত, জলপ্রপাত, ক্যানিয়ন, নদ-নদীর পানি কি নেই দেশটিতে! সবমিলিয়ে এক অপরূপ সৌন্দর্য্যের হাতছানি। ঘুরার জন্য কিংবা স্থায়ীভাবে বসবাসের জন্য কানাডায় এখন অভিবাসী আইনও কিছুটা শিথিল করা হয়েছে। ফলে যে কোন সময় আপনি এ দেশের সৌন্দর্য্য উপভোগের সুযোগ নিতে পারেন। তবে যাওয়ার আগে জেনে নেই কানাডা ভ্রমণের করণীয় ও বর্জনীয় বিষয়গুলো।

কানাডায় ঘুরতে গেলে যেখানে যেতে পারেন:


বিশাল আয়তনের দেশ কানাডায় ঘুরার জন্য রয়েছে একাধিক সৌন্দর্য্যমন্ডিত স্থান।  তারমধ্যে ক্যালগারি, এডমন্টন, হ্যালিফ্যাক্স, মন্ট্রিয়েল, অটোয়া, কুইবেক, টরন্টো, ভ্যানকোভাার, ভিক্টোরিয়া, উইনিপেগ, প্রিন্স এডোয়ার্ড আইল্যান্ড, বোনাভেঞ্চার আইল্যান্ড প্রভৃতি জায়গায় আপনি ঘুরতে যেতে পারেন।


কানাডাবাসী:

সাধারণত কানাডার অধিবাসীরা খুবই বন্ধুভাবাপন্ন। তারা বন্ধু কিংবা অপরিচিত দেশি এবং ভিনদেশিয়দের সাথে সততা, সংবেদনশীলতা, সহানুভূতি, নম্রতা, গোপনীয়তা এবং ব্যক্তিত্বের প্রতি সম্মান প্রদর্শন করে থাকেন। যদিও কিছু কানাডিয়ান এই রুলসগুলো মানতে ব্যর্থ হন তারপরও মূলধারার কানাডিয়ান সমাজে এই নীতিগুলো খুব ভালোভাবে মানা হয়। তাই ভ্রমণকারী হিসেবে আপনাকে তাদের সাথে ভালো আচরণটিই করতে হবে।

পোষাক-পরিচ্ছেদ:

অধিকাংশ কর্পোরেট কানাডিয়ান তাদের কর্মক্ষেত্রে নিজ প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিত্বকারী একটি ড্রেস কোড পরিধান করে থাকেন। বড় কর্পোরেট অফিস ছাড়াও পুরুষদের জন্য টাই এবং জ্যাকেট কানাডায় ফরমাল ড্রেস হিসেবেই পরিচিত।

আচার-আচরণ:

কানাডাকে সাধারণত অন্যান্য পশ্চিমা গণতান্ত্রিক দেশ থেকে একটি সমমাত্রিক দেশ হিসেবে মনে করা হয়। বেশিরভাগ কানাডিয়ানই একটি ফর্ম তথা অন্যের শক্তিশালী ব্যক্তিত্ব এবং অপরকে খুশি করার জন্য তাদের আচরণ খুব বেশি পরিবর্তনকে অপছন্দ করে। আধুনিক কানাডিয়ান শিশুরা অল্প বয়স থেকে অপেক্ষাকৃত স্পষ্টভাষী এবং স্বাধীনচেতা হয়ে থাকে। তারা প্রাপ্তবয়স্কদের যেমন শিক্ষক, পিতামাতা, বন্ধুদের সাথে খুব ভালো আচরণ করে থাকেন। একজন ভ্রমণকারী হিসেবে আপনাকেও তাদের সাথে ভালো আচরণ করতে হবে।

সময় সচেতনতা:

কানাডিয়ানরা সময়ের ব্যাপারে খুবই সচেতন। সুতরাং কানাডায় গেলে আপনাকে সময়ের প্রতি যথেষ্ঠ মনযোগী হতে হবে। কোন অনুষ্ঠানে নির্দিষ্ট সময়ের ১৫ মিনিটের মধ্যে পৌছাতে পারলেও কানাডিয়ানরা সেটা মেনে নিবে। কিন্তু এর চেয়ে বেশি সময় পরে গেলে হোস্ট এর বাজে আচরণ এর জন্য আপনাকে প্রস্তুত থাকতে হবে। কানাডায় অফিসিয়াল সময় সোমবার থেকে শুক্রবার সকাল ৯টা থেকে বিকেলে ৫টা। এর মাঝে দুপুরে লাঞ্চের বিরতি রয়েছে। খুব সকালে বা খুব রাতে কানাডিয়ান কাউকে ফোন দিলে বিরক্ত হতে পারেন। তাই এসময়ে ফোন দেয়া থেকে বিরত থাকাই ভালো। সপ্তাহের শনিবার এবং রবিবার কানাডিয়ানদের সাথে এপয়েন্টমেন্ট এর জন্য সময় নির্ধারণ করতে পারেন।

অভ্যর্থনা:

কানাডিয়ানরা প্রথমবারের মত কারো সাথে দেখা হলে হ্যান্ডশ্যাক করেন। তারপর পরিচিত হন। তাছাড়া কাছের বন্ধু কিংবা মহিলা হলে আলিঙ্গনও করে থাকেন। পরিবারের সদস্য বা প্রেমিক-প্রেমিকা হলে সেখানে চুম্বন দেয়ার রীতিও রয়েছে। তাই এসব দৃশ্যের সম্মুখীন হলে আপনাকে অবাক হওয়ার কিছু নেই।

উপহার দেয়া নেওয়া:

অপরিচিতদের উপহার দেওয়া কানাডায় খুব একটা দেখা যায়না। তবে হোস্টকে আপনি কিছু উপহার দিলে সে-ও আপনাকে কিছু দিতে পারে। কিছু না করলেও আপনাকে অন্তত ধন্যবাদ বলতে ভুল হবেনা। তাছাড়া কানাডায় ছুটির দিনগুলোতে বন্ধু বা আত্মীয় স্বজনদের সাথে উপহার বিনিময় হয়ে থাকে। কোন অনুষ্ঠানে উপহার হিসেবে মিষ্টিই সেখানে আদর্শ, তাছাড়া সেখানে সাধারণত দামি উপহার দেয়ার রীতিই বেশি পরিচিত। উপহার হিসেবে নগদ প্রদান সাধারণত পরিবারের সদস্যদের মধ্যেই হয়ে থাকে।

বকশিশ:

কানাডায় কোন রেস্টুরেন্টে বসে খাওয়া-দাওয়া করলে সেখানকার ওয়েটারদের কিছু বকশিশ দেওয়ার রীতি রয়েছে। মোট বিলের কমপক্ষ্যে ১৫ শতাংশ বকশিশ দিতে হবে। তবে ওয়েটারদের সার্ভিস যদি খুব ভালো মানের হয় সেক্ষেত্রে বকশিশ এর পরিমাণ আরও বেশি হতে পারে। যদি কেউ বকশিশ না দেয় তাহলে কানাডায় এটা অভদ্র আচরণ বলেই মনে করা হয়। এছাড়াও কানাডায় পিজ্জা বিতরণকারী পুরুষ, ট্যাক্সি ড্রাইভার, হেয়াড্রেসারদের বকশিশ দিতে হয়। অনেক সময় গাইডের সাথে বকশিশ এর পরিমাণ নিয়ে বিভ্রান্তির সৃষ্টি হয়, এজন্য এটা আগেই ঠিক করে রাখা উচিত। কানাডায় বকশিশ এর সিস্টেম আমেরিকার মতই। তাই আমেরিকায় বকশিশ ম্যানুয়ালগুলোই কানাডায় অনুসরণ করতে পারেন।

কানাডায় অঙ্গভঙ্গি:

কানাডায় অশ্লিল বা আপত্তিকর অঙ্গভঙ্গি প্রদর্শন কোনভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। সেখানে হাতের কিংবা শরীরের অশ্লীল প্রদর্শন অভদ্র আচরণ হিসেবে পরিচিত। মাঝের আঙুল, কারো দিকে রাগ বা অশ্লীল দৃষ্টিতে তাকানো, খাওয়ার সময় টেবিলের উপর কনুই রাখা এ বিষয়গুলোও ভ্রমণকারীকে খুব ভালোভাবে পরিত্যাগ করতে হবে।

কথপোকথন:

কানাডায় রাজনীতিকে ব্যক্তিগত বিষয় বলে মনে করা হয়। তাই আপনি কারো সাথে রাজনীতি নিয়ে কথা বলবেন না। এতে তারা অস্বস্তিবোধ করেন। তাছাড়া রাজনৈতিক দল, সরকারের নৈতিক নীতিমালা, কর বৃদ্ধি, বিদেশ নীতি, দারিদ্রতা, অভিবাসন, মাদক বৈধীকরণ, সমকমীতা, পতিতা প্রভৃতি বিষয় নিয়ে কথা না বলাই ভালো।

সেক্স:

যৌনতাপূর্ণ কথাবার্তা কানাডায় নিষিদ্ধ। বেশিরভাগ কানাডিয়ান তাদের সেক্সকে ব্যক্তিগত বিষয় বলে মনে করেন। তাই যৌন সম্পর্কিত বিষয়গুলো ভ্রমণকারীকে পরিহার করতে হবে।

ধর্মীয় বিষয়:

কানাডিয়ানদের বিভিন্ন ধর্মীয় বিশ্বাস রয়েছে। এটা তাদের ব্যক্তিগত জীবন সমাজের সাথে সম্পর্কিত। এ বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে তারা অনীহা প্রকাশ করতে পারে। এছাড়াও গর্ভপাতের বিষয়, জেন্ডার, বর্ণবাদ, যৌনতা প্রভৃতি বিষযগুলো নিয়ে ভ্রমণকারীকে কথা বলা থেকে বিরত থাকতে হবে।

 


রিটেলেড নিউজ

না ফেরার দেশে টরন্টোর সংষ্কৃতজন লোটন, আজ দুপুর ১টায় নাগেট মসজিদে জানাজা

না ফেরার দেশে টরন্টোর সংষ্কৃতজন লোটন, আজ দুপুর ১টায় নাগেট মসজিদে জানাজা

bcv24 ডেস্ক

মরণব্যাধী ক্যান্সারের সাথে দীর্ঘদিন যুদ্ধ করে না ফেরার দেশে চলে গেলেন টরন্টোর বাংলাদেশী কমিউনিট... বিস্তারিত

আগামী ২৮ মার্চ টরন্টোতে বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশন কানাডার বর্ণাঢ্য আয়োজন

আগামী ২৮ মার্চ টরন্টোতে বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশন কানাডার বর্ণাঢ্য আয়োজন

bcv24 ডেস্ক

হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের গবেষণা চর্চা কেন্দ্র খ্যাত 'ব... বিস্তারিত

কানাডায় অর্থ পাচারকারী ও খুনীদের বিরুদ্ধে অন্টারিও আওয়ামী লীগের মানববন্ধন

কানাডায় অর্থ পাচারকারী ও খুনীদের বিরুদ্ধে অন্টারিও আওয়ামী লীগের মানববন্ধন

bcv24 ডেস্ক

বাংলাদেশ থেকে কানাডায় অর্থ পাচারকারীদের বিরুদ্ধে মানববন্ধন করেছেন অন্টারিও আওয়ামী লীগ। গত রোবব... বিস্তারিত

কানাডায় স্কলারশিপের সুবিধা নিয়ে পড়তে চাইলে

কানাডায় স্কলারশিপের সুবিধা নিয়ে পড়তে চাইলে

bcv24 ডেস্ক

বাংলাদেশি অনেক শিক্ষার্থী কানাডায় পড়াশোনা করতে আগ্রহী। এইচএসসি ও অনার্স পাস করেই অনেক শিক্ষার্থ... বিস্তারিত

৩০০ কোটি টাকা আত্মসাৎ নিয়ে টরন্টোতে ব্যাপক প্রতিবাদ

৩০০ কোটি টাকা আত্মসাৎ নিয়ে টরন্টোতে ব্যাপক প্রতিবাদ

bcv24 ডেস্ক

বাংলাদেশের রাষ্ট্রায়ত্ত মালিকানাধীন বেসিক ব্যাংকের ৩০০ কোটি টাকা আত্মসাৎ করে কানাডায় রাজকীয় হা... বিস্তারিত

এসিবি ও ডব্লিউএসএনসিসি'র যৌথ উদ্যোগে কিডস এন্ড সিনিয়রস ডে উদযাপন

এসিবি ও ডব্লিউএসএনসিসি'র যৌথ উদ্যোগে কিডস এন্ড সিনিয়রস ডে উদযাপন

bcv24 ডেস্ক

ACB (Amra Canadian Bangladeshi) ও WSNCC (West Scarborough Neighbourhood Community Centre) এর যৌথ উদ্যোগ ও প্রচেষ্টায় গতকাল শনিবার, ১১ জানুয়ারীতে, অনুষ্ঠি... বিস্তারিত

সর্বশেষ

‘নির্বাচন থেকে সরে যেতে অজুহাত খুঁজছে বিএনপি’

‘নির্বাচন থেকে সরে যেতে অজুহাত খুঁজছে বিএনপি’

bcv24 ডেস্ক

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘সিটি নির্বাচনে হেরে যাওয়ার আশ... বিস্তারিত

বরগুনায় বাসের ধাক্কায় মা-ছেলেসহ নিহত ৩

বরগুনায় বাসের ধাক্কায় মা-ছেলেসহ নিহত ৩

bcv24 ডেস্ক

বরগুনায় বাসের ধাক্কায় ইজিবাইকের যাত্রী মা-ছেলেসহ তিনজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় পথচারীসহ আহত হয়েছেন ... বিস্তারিত

আত্মহত্যা করেছেন অভিনেত্রী সেজল শর্মা

আত্মহত্যা করেছেন অভিনেত্রী সেজল শর্মা

bcv24 ডেস্ক

আত্মহত্যা করেছেন অভিনেত্রী সেজল শর্মা। তাকে মুম্বাইয়ের মীরা রোডে নিজস্ব বাসভবনে মৃত অবস্থায় পাও... বিস্তারিত

সিরিজে ফেরার ম্যাচে টস জিতে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ

সিরিজে ফেরার ম্যাচে টস জিতে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ

ক্রিড়া প্রতিবেদক

লাহোরে দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ। প্রথম ম্যাচে হেরে যা... বিস্তারিত